ইস বার ২০০ পার, কৃষ্ণ কৃষ্ণ হরে হরে বিজেপি ঘরে ঘরে: শুভেন্দু অধিকারী

আমাদের ভারত, পূর্ব মেদিনীপুর, ২৪ ডিসেম্বর: কাঁথিতে জনপ্লাবন শুভেন্দুর রোড শোতে। মানুষের ঢল হার মানিয়েছে গতকালের তৃণমূলের পদযাত্রাকে এমনটাই দাবি বিজেপির। বিজেপিতে যোগদানের পরে নিজের ঘরের মাটিতে এই প্রথম শুভেন্দু অধিকারী। রোড শো থেকে শুভেন্দুর মুখে বারবার জয় শ্রীরাম ধ্বনি শোনা যায়। তার পাশাপাশি তিনি বলেন, পরিবর্তনের পরিবর্তন চাই। রোড শো চলাকালীন শুভেন্দু অধিকারীর মুখে বারবার শোনা গেছে, আগলিবার ২০০ পার। কৃষ্ণ কৃষ্ণ হরে হরে বিজেপি ঘরে ঘরে। কর্মী সমর্থকদের চাপে বারবার গতি থমকে গিয়েছে রোড শো’য়ের। গতকাল অধিকারী পরিবারের গড়ে তৃণমূলের পদযাত্রা ও সভাকে একপ্রকার চ্যালেঞ্জ জানিয়ে আজ কাঁথিতে বিজেপির রোড শো। যার মধ্যমণি ছিলেন শুভেন্দু অধিকারী। কাঁথির মেচেদা বাইপাস থেকে এই রোড শো শুরু হয়ে চৌরঙ্গী হয়ে কলেজ রোড দিয়ে সেন্ট্রাল বাস স্ট্যান্ডে এসে শেষ হয়। তারপরে সেখানে পথসভা করেন শুভেন্দু অধিকারী সহ বিজেপি নেতারা। আজকের এই রোড শোতে শুভেন্দু অধিকারীর সঙ্গে ছিলেন সৌমিত্র খাঁ, জয়প্রকাশ মজুমদার ও শঙ্কুদেব পণ্ডা।

রোড শো চলাকালীন শুভেন্দু অধিকারী সাংবাদিকদের প্রশ্নের উত্তর দিতে গিয়ে বলেন, আমি শুধু কাঁথির নয়, আমি বাংলার, আমি ভারতের। তিনি আরও বলেন, গতকাল কাঁথিতে দুই ছিন্নমূল তৃণমূল নেতা এসেছিলেন। পরিবার তন্ত্র প্রসঙ্গে তিনি বলেন, একই পরিবারের হলে রাজনীতিতে আসা যাবে না এটা ঠিক কথা নয়। রাজনীতিকে ব্যবহার করে তোলাবাজি করা যাবে না। আমার “তোলাবাজ ভাইপো”তেই আপত্তি। মমতার নন্দীগ্রামে সভা করতে আসা প্রসঙ্গে তিনি বলেন, আসতেই পারেন নন্দীগ্রাম বাংলার বাইরে নয়। তিনি আরও বলেন, আমার পেছনে যত লাগবে তৃণমূল তত শেষ হবে। রোড শো শেষে শুভেন্দু অধিকারী ও অন্যান্য বিজেপি নেতারা কাঁথির সেন্ট্রাল বাস স্ট্যান্ডে জনসভায় যোগ দেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *