গোপীবল্লভপুরে ৭০০ বছরের পুরনো “গিলাকাঁটিয়া মদনমোহন জীউর মন্দিরের” পুনঃপ্রতিষ্ঠা

আমাদের ভারত, ঝাড়গ্রাম, ২৯ নভেম্বর: গোপীবল্লভপুর ১ নং ব্লকের ভোলা মহুলির ৭০০ বছরের পুরোনো “গিলাকাঁটিয়া মদনমোহন জীউর মন্দিরের” পুনঃপ্রতিষ্ঠা ও অখণ্ড হরিনাম সংকীর্তন অনুষ্ঠানের উদ্বোধন হল আজকে। ফিতে কেটে মন্দিরের শুভ উদ্বোধন করলেন গোপীবল্লভপুরের মহন্ত শ্রীশ্রী কৃষ্ণকেশবানন্দ দেবগোস্বামী। এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন গোপীবল্লভপুর ১ নম্বর ব্লকের সমষ্টি উন্নয়ন আধিকারিক দেবজ্যোতি পাত্র গোপীবল্লভপুর থানার আইসি সুদীপ ব্যানার্জি।

এ বিষয়ে মহান্ত শ্রীশ্রী কৃষ্ণকেশবনন্দ দেব গোস্বামী বলেন, ৭০০ বছর আগে ময়ূরভঞ্জের ভূঁইয়া রাজা প্রথম এই মন্দিরের প্রতিষ্ঠা করেছিলেন। তারপর বর্গী হানা সময় এই মন্দিরের বিগ্রহ চুরি হয়ে যায়। তারপর থেকেই বিগ্রহ শূন্য ছিল এই মন্দির। মন্দির প্রায় ভগ্নপ্রায় হতে বসেছিল। অবশেষে গ্রামবাসীদের উদ্যোগে ও সহযোগিতায় এই মন্দিরে আজকে রাধাকৃষ্ণের নতুন বিগ্রহ প্রতিষ্ঠা করে মন্দিরটি পুনরায় প্রতিষ্ঠা করা হলো। মন্দির কমিটির সদস্য রঞ্জিত দাস বলেন এই মন্দির প্রতিষ্ঠা করার জন্য আমরা সরকারের কাছে আবেদন করেছিলাম কিন্তু সেই আবেদন আমরা সাড়া পাইনি তাই নিজেরাই একটু একটু টাকা দিয়ে মন্দির আবার পুনরায় প্রতিষ্ঠা করলাম।

ঝাড়গ্রামের প্রশাসনিক সভা থেকে মুখ্যমন্ত্রী যেভাবে ঝাড়গ্রাম জেলার কনক-দুর্গা মন্দির, রামেশ্বর মন্দির ও গুপ্তমনি মন্দির সংস্কারের জন্য অর্থ দিয়েছেন আমরা ভোলা মহুলির সমস্ত গ্রামবাসী মুখ্যমন্ত্রীর কাছে আবেদন করছি আমাদের এই মদনমোহন মন্দির সংস্কারের জন্য কিছু অর্থ দান করুন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *