ভাড়াটে খুনিদের মত ভাড়াটে পরামর্শদাতা নিয়োগ করে প্রমাণ করেছে ওদের দলে বাংলায় কোনও নেতা নেই : সেলিম

আমাদের ভারত, ব্যারাকপুর, ৪ ডিসেম্বর: প্রশান্ত কিশোরকে দলের পরামর্শদাতা নিয়োগ করার তীব্র সমালোচনা করলেন সিপিএম নেতা মহম্মদ সেলিম। একইসঙ্গে বিজেপি সমালোচনা করেন তিনি। কারণ সম্প্রতি বিজেপি অন্য রাজ্যের বেশকিছু নেতাকে পর্যবেক্ষক হিসেবে নিয়োগ করেছে। মোহাম্মদ সেলিমের প্রশ্ন, তাহলে তৃণমূল বিজেপির বাংলার তাদের মাথায় কি কিছু নেই?
আজ উত্তর ২৪ পরগনার কামারহাটিতে দলীয় কর্মসূচিতে যোগ দিতে এসে এভাবেই বাংলার রাজনীতি নিয়ে বিরোধী দল বিজেপি ও তৃণমূলকে একই সুরে কটাক্ষ করেন মহম্মদ সেলিম ।

তিনি বলেন, “বিরোধী দল বিজেপি ও তৃণমূল ভাড়াটে পরামর্শদাতা এনে বাংলার রাজনীতিকে নিয়ন্ত্রণ করতে চাইছে। একটা সময় নেতাজী সুভাষচন্দ্র বসুর মত নেতারা বাংলার রাজনীতি নিয়ন্ত্রণ করেছে। এখন ভিন রাজ্য থেকে ভাড়াটে পরামর্শদাতা এনে বিজেপি ও তৃণমূল প্রমাণ করে দিয়েছে ওদের দলের বাংলার নেতাদের মাথায় কিছুই নেই। যেভাবে ভাড়াটে খুনি নিয়ে এসে খুন করানো হয়, তেমন ভাবে এখন বাংলার রাজনীতির নিয়ন্ত্রক করা হচ্ছে ভিন রাজ্যের ভাড়াটে পরামর্শদাতাদের দিয়ে।

মহম্মদ সেলিমের প্রশ্ন, কেন বাংলার রাজনীতিকদের মাথায় কি মগজাস্ত্র বলে কিছু নেই? একটা সময় গোটা দেশের রাজনৈতিক চিন্তা ভাবনার রূপ রেখা তৈরী করা হত বাংলা থেকে। এখন বিজেপি ইউপি থেকে ধরে আনছে অমিত মালব্যকে, তৃণমূল বিহার থেকে আনছে প্রশান্ত কিশোরকে। এই মালব্য যেখান থেকে এসেছে, সেখানে হাথরাসের মত ঘটনা ঘটেছে। বাংলাকেও বিজেপি সেটাই করতে চাইছে না কি ? আর প্রশান্ত কিশোর, সে তো একসময় বিজেপির পক্ষে কাজ করেছে । এখন তৃণমূলের পক্ষে কি কাজ করবে? বুদ্ধি দেবে, কেন বাংলার রাজনীতিকদের মাথায় কি কিছু নেই? বামপন্থীরা তা মনে করে না। একমাত্র বামেরাই বাংলাকে সঠিক দিশা দেখাতে পারে ।”

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *