বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি জেপি নাড্ডার বীরভূমের সভা বাতিল

আমাদের ভারত, বর্ধমান, ৪ জানুয়ারি: বীরভূমের পরিবর্তে বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি জেপি নাড্ডা বর্ধমানের কাটোয়ায় প্রকাশ্য সভা করবেন। আজ কাটোয়ায় এক সাংবাদিক সম্মেলনে একথা জানিয়েছেন বিজেপি সাংসদ সুকান্ত মজুমদার।

আগামী ৯ জানুয়ারি বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি জেপি নাড্ডা’র বোলপুরে সভা করার কথা ছিল, কিন্তু সেই সভা বাতিল হয়েছে। পরিবর্তে তিনি কাটোয়ার পূর্বস্থলীতে সভা করবেন বলে আজ কাটোয়ায় সাংবাদিক সম্মেলন করে জানিয়েছেন সাংসদ সুকান্ত মজুমদার। ওই একই দিনে বর্ধমান শহরে রোড’শো করবেন। তিনি জানান, ওইদিন সকাল দশটায় হেলিকপ্টারে কাটোয়ায় আসবেন জেপি নাড্ডা এবং সেখানে পৌছানোর পর মন্দিরে পুজো দিয়ে তিনি মুস্থলীতে বিএড কলেজের পাশের ময়দানে প্রকাশ্য সমাবেশে বক্তব্য রাখবেন। সুকান্তবাবু জানিয়েছেন, ওই সভায় লক্ষাধিক মানুষের সমাগম হবে এবং সভা থেকে সোনার বাংলা গড়ার শপথ নেওয়া হবে। দুপুরে এক কৃষকের বাড়িতে মধ্যাহ্ন ভোজ সারবেন বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি।

জেপি নাড্ডার উপস্থিতিতে তৃণমূল থেকে কেউ যোগদান করবে কিনা এই প্রশ্নের উত্তরে সুকান্তবাবু বলেন, ক্রমশ প্রকাশ্য। তৃণমূল এখন একটা ডুবন্ত নৌকা, কেউ আর সেখানে থাকতে চাইছেন না, সবাই বেরিয়ে আসতে চাইছেন। উপযুক্ত সময়ে তাদের নেওয়া হবে। এ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, তবে সবাইকে নেওয়া হবে না। নেওয়ার ক্ষেত্রে তাদের যোগ্যতা যাচাই করে নেওয়া হবে। যাদের বিরুদ্ধে কাটমানি নেওয়ার অভিযোগ রয়েছে বা যাদের ভাবমূর্তি পরিষ্কার নয় তাদের নেওয়া হবে না। যারা ভালো, যাদের স্বচ্ছ ভাবমূর্তি রয়েছে তাদেরই বিজেপির সৈনিক হিসেবে নেওয়া হবে।

জানা নির্বাচনের আগে পর্যন্ত বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি জেপি নাড্ডা পশ্চিমবঙ্গে যতগুলি সভা করবেন তার পুরো দায়িত্বে থাকছেন সাংসদ সুকান্ত মজুমদার। জেপি নাডার সব কার্যক্রমের পর্যবেক্ষক হিসাবে তাঁকে দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে। সেই কারণেই আজ তিনি কাটোয়া এসেছিলেন। জেপি নাড্ডার মিটিং এর প্রস্তুতি খতিয়ে দেখতে দেখেন এবং জেলা নেতৃত্বের সঙ্গে বৈঠক করেন। তাঁর সঙ্গে বৈঠকে ছিলেন, কেন্দ্রীয় সম্পাদক অরবিন্দ মেনন এবং রাঢ়বঙ্গের দায়িত্বপ্রাপ্ত কেন্দ্রীয় পর্যবেক্ষক তথা হরিয়ানার সংগঠন সম্পাদক রবীন্দ্র রাজু। কাটোয়ায় বৈঠক শেষে তাঁরা বর্ধমান শহরেই একইভাবে জেলা নেতৃত্বের সঙ্গে বৈঠক করেন। বৈঠকে রোড’শোর রূপরেখা নিয়ে আলোচনা হয়। জেপি নাড্ডার সভায় বিজেপির সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক কৈলাস বিজয়বর্গীয়, সর্বভারতীয় সহ-সভাপতি মুকুল রায় এবং রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ থাকবেন। এছাড়া শুভেন্দু অধিকারীরও থাকার সম্ভাবনা রয়েছে বলে সুকান্ত মজুমদার জানিয়েছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *